১২:৫৭ পিএম, ১১ ডিসেম্বর ২০১৯, বুধবার | | ১৩ রবিউস সানি ১৪৪১

Developer | ডেস্ক

রায়ে বিএনপি সন্তুষ্ট

'মানুষের কথা বলার সুযোগ না থাকলে রাষ্ট্রে উগ্রবাদ ও জঙ্গিবাদের উদ্ভব হয়'- মির্জা ফখরুল

৩০ নভেম্বর ২০১৯, ০৬:২৮


মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।  ফাইল ছবিমির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।  ফাইল ছবি

ঢাকার গুলশানে হোলি আর্টিজান বেকারিতে হামলার ঘটনায় করা মামলার রায়ে সন্তুষ্টি জানিয়েছেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।  তিনি বলেছেন, মানুষের কথা বলার সুযোগ না থাকলে রাষ্ট্রে উগ্রবাদ ও জঙ্গিবাদের উদ্ভব হয়। 

শুক্রবার রাজধানীর জাতীয় প্রেসক্লাবে এগ্রিকালচারিস্ট’স অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের (এ্যাব) সাবেক সভাপতি জাবেদ ইকবাল স্মরণে এক আলোচনা সভায় মির্জা ফখরুল এসব কথা বলেন। 

গত বুধবার হোলি আর্টিজানে হামলা মামলার রায়ে সাত জঙ্গির ফাঁসি হয়।  রায়ের পর বিএনপির কোনো প্রতিক্রিয়া না থাকায় সরকার দলীয় নেতারা সমালোচনা করেন।  আজ মির্জা ফখরুল বলেন, ‘আমরা তো প্রতিক্রিয়া দিয়েছি।  সাংবাদিক ভাইয়েরা আমাকে ফোন করে প্রতিক্রিয়া জানতে চাইলে আমি বলেছি, এ রায়ে বিএনপি সন্তুষ্ট।  এ রায়কে আমরা স্বাগত জানাচ্ছি। ’ তিনি বলেন, ‘কিন্তু সমস্যা তো অন্য জায়গায়।  রাষ্ট্রে যদি কথা বলার সুযোগ না থাকে, মানুষের কণ্ঠ যদি রুদ্ধ করে দেওয়া হয়, তাহলে সমাজ ও রাষ্ট্রে এ ধরনের উগ্রবাদ ও জঙ্গিবাদের উদ্ভব হয়।  ১২ বছর ধরে তারা যে জোর করে ক্ষমতায় আছে এবং কাউকে কথা বলতে দিচ্ছে না, এ জন্যই এসব সমস্যার উদ্ভব হচ্ছে। ’

বিএনপি মহাসচিব বলেন, হোলি আর্টিজান ঘটনা ঘটার পর বিএনপি চেয়ারপারসন সংবাদ সম্মেলন করে জাতীয় ঐক্যের কথা বলেছিলেন।  দলমত-নির্বিশেষে সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হতে আহ্বান জানিয়েছিলেন।  বাংলাদেশকে ব্যর্থ রাষ্ট্রে পরিণত করার চক্রান্ত চলছে জানিয়ে মির্জা ফখরুল নেতা–কর্মীদের ঐক্যবদ্ধ থাকার আহ্বান জানান। 

এগ্রিকালচারিস্ট’স অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের আহ্বায়ক রাশিদুল হাসানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন বিএনপির চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা আব্দুল হাই সিকদার, যুগ্ম মহাসচিব সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল, মহিলা দলের সভাপতি আফরোজা আব্বাস প্রমুখ।